অস্ট্রেলিয়া যুবলীগের আয়োজনে শেখ ফজলুল হক মনি’র জন্মদিন উদযাপন

স্থানীয় সময় গত ৪ ডিসেম্বর (শুক্রবার) সিডনিস্থ লাকেম্বার পার্টি অফিসে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান, মহান ৭১ এর বীর মুক্তিযোদ্ধা, মুজিব বাহিনীর অধিনায়ক, লেখক-সম্পাদক ও স্বাধীনতা পরবর্তী যুবসমাজকে দেশের কাজে সংগঠিত করার রূপকার, কিংবদন্তি যুবনেতা শেখ ফজলুল হক মনি’র ৮১তম জন্মদিন পালন করা হয়।

বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ অস্ট্রেলিয়া শাখার আয়োজনে উক্ত অনুষ্ঠানে সংগঠনের নেতা-কর্মীরা অংশ নেন ও শেখ মনির রাজনৈতিক আদর্শ ও সামাজিক জীবনের নানা অংশ নিয়ে আলোচনা করেন। সব শেষে স্লোগানে স্লোগানে উজ্জিবিত অস্ট্রেলিয়া আওয়ামী লীগের নেতা কর্মীরা কেক কেটে বাংলাদেশের যুবসমাজের আদর্শিক নেতা, দূর্ধর্ষ মুক্তিযোদ্ধা অধিনায়ক শেখ ফজলুল হক মনি’র ৮১ তম জন্মদিন উদযাপন করেন।

সিডনির ইঙ্গেলবার্নে ক্যাঙ্গারু প্রোপার্টি অস্ট্রেলিয়া’র যাত্রা শুরু

গত ১ ডিসেম্বর (মঙ্গলবার) দুপুরে বাংলাদেশি অধ্যুষিত ইঙ্গেলবার্নস্থ ৩১- ৩৩ অক্সফোর্ড রোডে বাংলাদেশিদের দ্বারা পরিচালিত ক্যাঙ্গারু প্রোপার্টি অস্ট্রেলিয়া তাদের নতুন কার্যালয়ের উদ্বোধন করে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সিটি কাউন্সিলের কমিশনার মাসুদ চৌধুরী ও স্থানীয় সামাজিক ও ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ক্যাঙ্গারু প্রোপার্টি অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে অতিথিদের স্বাগত জানান, সালমান আনোয়ার, নাইম এম সরদার, আমিন মোহাম্মদ, মোহাম্মেদ আয়মান ও জোসেফ কানয়েনগনি। স্থানীয় আবাসন বাজারে সর্বোচ্চ সেবা প্রদানে অঙ্গীকারবদ্ধ অভিজ্ঞ এই টিমটি সকলের সহযোগিতা কামনা করেছেন।

অনুষ্ঠানের পর স্ন্যাকস ও কোমল পানীয় পরিবেশন করা হয়। 

অস্ট্রেলিয়া ও সিডনি আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে মাস্ক প্রদান

বাংলাদেশে করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের শুরু থেকেই বাংলাদেশ অাওয়ামী লীগ ও দলটির  অঙ্গসংগঠন সমূহ করোনা সংক্রমণ  মোকাবিলায় বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। তারই অংশ হিসেবে দলটি বিভিন্ন পেশাজীবি মানুষের মাঝে স্বাস্থ্য সুরক্ষায় মাস্ক ও হ্যান্ড-স্যানিটাইজার দ্রব্যাদি বিতরণ করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার (৩ ডিসেম্বর) আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ উপকমিটি আয়োজিত মাস্ক বিতরণ অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ অাওয়ামী লীগ অস্ট্রেলিয়া ও বাংলাদেশ অাওয়ামী লীগ সিডনির পক্ষ থেকে সিডনি আওয়ামী লীগের সভাপতি গাউসুল আলম শাহাজাদা ও সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আজাদ আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ উপকমিটিতে ৫০ হাজার মাস্ক প্রদান করেন। আনুষ্ঠানিকভাবে মাস্কগুলো গ্রহণ করেন তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ এবং আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক বাবু সুজিত রায় নন্দী।

বাংলাদেশ অাওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ উপকমিটিতে মাস্ক প্রদান করায় তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ অস্ট্রেলিয়া ও সিডনি অাওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দকে ধন্যবাদ জানান।

এসময় তথ্যমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ যেভাবে শুরু থেকে মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে এই করোনাকালে, অন্য কোনও রাজনৈতিক দল সেভাবে দাঁড়ায়নি। শুধু সমালোচনার বাক্স খুলে তারা বসেছিল। বিএনপি তাদের দলীয় কার্যালয়, প্রেস ক্লাব আর নয়াপল্টনের রাস্তায় কিছু সমাবেশ করেছে এবং সরকারের প্রতি ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রতি বিষোদগার করেছে।

আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক বাবু সুজিত রায় নন্দী মাস্ক গ্রহণ কালে বাংলাদেশ অাওয়ামী লীগ অস্ট্রেলিয়ার প্রতিষ্ঠা-সভাপতি নূরুল আজাদের কথা স্মরণ করেন এবং মরহুমের আত্মার শান্তি কামনা করেন।

এমনকি তিনি নূরুল আজাদের জ্যেষ্ঠপুত্র ও সিডনি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আজাদ এবং সভাপতি গাউসুল আলম শাহাজাদার ভূয়সী প্রশংসা করেন।

এ সময় গাউসুল আলম শাহাজাদা বলেন, শত ব্যস্ততার মাঝে মাস্কগুলো গ্রহণ করায় আওয়ামী লীগের সম্মানিত যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ ও আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক বাবু সুজিত রায় নন্দীকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাচ্ছি। মহামারির শুরু থেকেই আমরা অস্ট্রেলিয়ার নেতৃবৃন্দ

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ মত মানুষের পাশে থাকার চেষ্টা করেছি। ইনশাল্লাহ সামনের দিনগুলোতেও মুজিব সৈনিক হিসেবে গণমানুষের পাশে থাকবো৷  

এ ছাড়া তথ্যমন্ত্রী সাম্প্রতিক বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নিয়ে বিতর্ক প্রসঙ্গে বলেন, বাংলাদেশে বহু ভাস্কর্য বহু আগে নির্মিত হয়েছে। তখন কেউ প্রশ্ন তুলে নাই। ইসলামি বিশ্বের প্রত্যেকটি দেশে, সৌদি আরবে মানুষের মুখায়বসহ শুরু করে নানা ধরনের ভাস্কর্য আছে। ইরানে ইসলামি বিপ্লবের মাধ্যমে সেখানে ইসলামি সরকার প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। সেখানে আয়াতুল্লাহ খোমেনিরও ভাস্কর্য আছে। বাংলাদেশেও আগে বহু নেতার, বহু কবি, সাহিত্যিকের ভাস্কর্য এখানে আছে। তখনতো কেউ কিছু বলেন নাই। হঠাৎ করে এই প্রশ্ন আনা রাজনৈতিক উদ্দেশ্যেপ্রণোদিত। কারণ, যারা এই প্রশ্নগুলো উপস্থাপন করছেন তাদের কোনও কোনও রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতা আছে। তারা বিভিন্ন দলের নেতা, তাদের দলগুলো আবার নির্বাচন কমিশনে নিবন্ধিত। সুতরাং তারা যখন বক্তব্য দেয়, তখন একটি রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে বক্তব্য দেয়।’

উল্লেখ্য, গত বুধবার (০২ ডিসেম্বর) অস্ট্রেলিয়া ও সিডনি আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে গাউসুল আলম শাহাজাদা ও ফয়সাল আজাদ  অাওয়ামী যুবলীগের নিকট ৫০ হাজার মাস্ক প্রদান করেন।  মাস্কগুলো গ্রহণ করেন বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ এবং ফরিদপুর-৪ আসনের সংসদ সদস্য ও যুবলীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরী নিক্সন।

মোমিন স্বপনের কথায় কণ্ঠশিল্পী সাদাতের ‘তোর শহরে বৃষ্টি হলে’

গীতিকার ও সাংবাদিক মোমিন স্বপনের ‘তোর শহরে বৃষ্টি হলে ভিজে আমার মন,’ শিরোনামে গানের কথায় কণ্ঠ দিয়েছেন তরুণ সংগীত শিল্পী সাদাত হোসাইন। গানটির মিউজিক করেছেন তরুণ কম্পোজার প্রত্যয় খান।

এ গান সম্পর্কে শিল্পী সাদাত হোসাইন বলেন, আজে বাজে গানের এই বাজার, দিনকে দিন আরো বেশি তলানিতে গিয়ে ঠেকছে, আমাদেএ এই দুঃসময় দূর করার জন্য বেশি বেশি ভাল গান গাওয়া উচিৎ ভাল গান দিয়েই এই খারাপ গান গুলোকে বিদায় জানাতে হবে। আমি সব সময় তাই ভাল গানের সাথে থাকতে চাই, এই গানটি তেমন একটি গান আশা করছি দর্শক খুব ভাল একটি কথার গান পেতে যাচ্ছে এজন্য জি-সিরিজ এর কর্ণধার নাজমুল স্যারকে ধন্যবাদ দেয়া উচিৎ ভাইরালের এই যুগে, উনি ভালো গানের জন্য কাজ করছেন, নতুনদের জন্য কাজ করছেন।

গীতিকার ও সাংবাদিক মোমিন স্বপন বলেন, এই গানটির জন্য দীর্ঘ দেড় বছর অপেক্ষায় ছিলাম। অবশেষে গানটি মুক্তি পেয়েছে। ভালো লিরিকে গান শোনার শ্রোতা সব সময় আছে। আশা রাখি গানটি শ্রোতাদের ভালো লাগবে। সর্বোপরি শ্রোতাদের মূল্যায়নই বড় কথা। এজন্য শিল্পী সাদাত ও জি-সিরিজের কর্ণধার নাজমুল ভাইকে ধন্যবাদ।

রোমান্টিক ধাচের এ গানের মিউজিক ভিডিওটি নির্মাণ করেছেন পরিচালক স্বরোজ দেব। এতে মডেল হিসেবে অভিনয় করেছেন আশফাক রানা ও আরিয়ানা জামান। ভিডিও ও কালার সম্পাদনায় ছিলেন শাহরিয়ার শাহরুখ। জি-সিরিজের ব্যানারে মিউজিক ভিডিওটি আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে মুক্তি দিয়েছে।  গানটি দেখতে ক্লিক করুন : https://www.youtube.com/watch?v=eUaiwyIb2GE

অস্ট্রেলিয়ায় বাংলাদেশি ডাক্তারদের টেলি স্বাস্থ্য সেবা চালু

হেলথ অব লাভড ওয়ানস (হোলো) অস্ট্রেলিয়া থেকে বাংলাদেশে বিনা মূল্যে টেলিফোনে স্বাস্থ্য সেবা প্রদানের উদ্যোগ নিয়েছে।

পৃথিবীর অন্যতম শীর্ষ জনস্বাস্থ্য ব্যাবস্থাপনার ভিত্তিতে গড়ে উঠা অস্ট্রেলিয়ান হাসপাতাল, ক্লিনিক, ইমারজেন্সি ইউনিটের তিনজন মেধাবি বাংলাদেশি চিকিৎসকদের উদ্যোগে গঠিত অলাভজনক এই প্রতিষ্ঠানটির পরিচালনা পর্ষদ অতি সম্প্রতি সিডনিতে আয়োজিত এক সাংবাদিক সম্মেলনে জানান, অস্ট্রেলিয়ায় স্থায়ী ও অস্থায়ী ভাবে বসবাসরত যে কোন প্রাপ্তবয়স্ক বাংলাদেশী টেলিফোন, ইন্টারনেটের মাধ্যমে তাদের দেশে বসবাসরত প্রিয়জনদের স্বাস্থ্যবিষয়ক পরামর্শ নিতে পারবেন।

প্রতিষ্ঠানটির অন্যতম পরিচালক ডাঃ শেখ হায়দার তপু বলেন, সেবা নিতে আগ্রহী অস্ট্রেলিয়ায় বসবাসরত বাংলাদেশীদের তাদের নাম ও বিস্তারিত যোগাযোগের  ঠিকানা আমাদের http://www.holonow.com.au ওয়েবসাইটের মাধ্যমে নিবন্ধন করতে হবে। তারপর রোগীর ফোন নম্বর সহ অনলাইনে তাদের পছন্দ মতো সময়ে বুকিং দিতে হবে।  আমাদের একজন চিকিৎসক নিদিষ্ট তারিখ ও সময়ে আবেদনকারী ও রোগীর সাথে টেলিফোনে যোগাযোগ করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থাপত্র ও পরামর্শ প্রদান করবেন। প্রয়োজনে তারা বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদেরও পরামর্শ নেবেন।

ডা: শেখ হায়দার তপু, ডা: ফয়যুর রেজা ইমন, ডা: ইফতেখার হোসেন পাভেল ও ডঃ মাহফুজ আশরাফ এর হেলথ অব লাভড ওয়ানস (হোলো) এই টেলিহেলথ সেবার সাথে যুক্ত আছেন আরও ডজনখানেক বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক। বিস্তারিত জানবার জন্য যোগাযোগ করতে পারেন ডা: শেখ হায়দার তপু (Phone +61 433 380 497 & email: info@holonow.com.au

নাসির আল মামুন বিএফইউজে’র সিনিয়র সহকারী মহাসচিব নির্বাচিত

লন্ডন থেকে প্রকাশিত সাপ্তাহিক আজকাল ও ঢাকা থেকে প্রকাশিত দৈনিক আজকাল এর প্রধান সম্পাদক বিশিষ্ট সা়ংবাদিক নাসির আল মামুন বিপুল ভোটে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) সিনিয়র সহকারী মহাসচিব নির্বাচিত হয়েছেন।

বা়ংলাদেশ জাতীয় প্রেসক্লাবের স্হায়ী সিনিয়র সদস্য নাসির আল মামুন বাংলাদেশে ২৩ বছর পূর্বে ১৯৯৭ সাল থেকে প্রকাশিত জাতীয় দৈনিক খবরপত্রের প্রতিষ্ঠাতা ( সাবেক সম্পাদক ও প্রকাশক) ।বাংলাদেশে বহুল প্রচারিত কালারফুল ট্যাবলয়েড সাপ্তাহিক খবরের অন্তরালের সাবেক সম্পাদক নাসির আল মামুন বর্তমানে দেশের প্রথম ও একমাত্র দ্বি-ভাষিক দৈনিক চ্যালেন্জ (The Daily Challenge) এর সম্পাদক ।

জাতীয় প্রেসক্লাবে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) এই নির্বাচনে সারা দেশ থেকে আগত কাউন্সিলরগন সিনিয়র সহকারি মহাসচিব পদে নাসির আল মামুনকে নির্বাচিত করেন । বিএফইউজে’র এই নির্বাচনে অংগ সংগঠন ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের(ডিইউজে) ২২৬ জন , চট্রগ্রাম মেট্রোপলিটন সাংবাদিক ইউনিয়নের (সিএমইউজে) ১০ জন ,রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের (আরইউজের) ৬জন , মেট্রোপলিটন সাংবাদিক ইউনিয়ন , খুলনা’র (এমইউজে,খুলনা) ৭ জন , সাংবাদিক ইউনিয়ন যশোর (জেইউজে) ৭জন ,সাংবাদিক ইউনিয়ন বগুরা’র(জেইউবি) ১০ জন , সাংবাদিক ইউনিয়ন কক্সবাজার’র (জেইউসি) ৬ জন , কুমিল্লা জেলা সাংবাদিক ইউনিয়নের (সিইউজে), ১২ জন , সাংবাদিক ইউনিয়ন দিনাজপুর’র(জেইউডি) ৯জন ,কুষ্টিয়া সাংবাদিক ইউনিয়নের (কেইউজে) ১১ জন , সাংবাদিক ইউনিয়ন ময়মনহিংহ’র(জেইউএম) ৫ জন এবং সাংবাদিক ইউনিয়ন গাজীপুর’র(জেইউজি) ৫ জন কাউন্সিলর এই ভোট কার্যক্রমে অংশগ্রহনের সুযোগ পান ।

প্রত্যেক ইউনিয়ন প্রতি ১০ জন সদস্যের বিপরীতে ১ জন করে নির্বাচিত করে মোট ৩১৪ জন কাউন্সিলর এই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে । নির্বাচনে তিন সহকারী মহাসচিব পদের মধ্যে নাসির আল মামুন সর্ব্বোচ্চ ভোট (১৬৯) পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন।

মিলন ভট্টাচার্যের ‘চাঁদের হাট’

পরিচালনা এবং অভিনয়ে সমান ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন জনপ্রিয় অভিনেতা ও পরিচালক মিলন ভট্টাচার্য। জরুরি বিবাহ, মেজাজ ফরটি নাইন, ভালো হতে পয়সা লাগে না, সহ অসংখ্য একক নাকট নির্মান করে অনেক আগেই দর্শকদের কাছে পরিচালক হিসেবে নজর কেড়েছেন মিলন ভট্টাচার্য। ধারাবাহিক ইনডিসিফিলিন পর একটা বিরতির পর আবারও চাঁদের হাট শিরোনামে একটি ধারাবাহিক নির্মান করলেন মিলন ভট্টাচার্য।

এক প্রশ্নের জবাবে পরিচালক ‘চাঁদের হাটে’ নিয়ে বলেন, একটা লম্বা বিরতির পর আমার এই ধারাবাহিক নির্মান করা। মূলত এই বিরতী ভালো গল্পের জন্যই। ‘চাঁদের হাট’ এমন একটি গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে যা সব শ্রেনীর দর্শকদের কাছে আশা করি ভালো লাগবে।

গল্প প্রসঙ্গে মিলন বলেন,স্বপ্নডানা গ্রামের মানুষের জীবন গাথা উঠে এসেছে এই ধারাবাহিকে। গল্পের প্রধান চরিত্র জালাল তালুকদার শুধু মাত্র সন্তান লাভের আশায় একাধিক বিয়ে করে। তার এই বিয়েতে সহয়তা করে এই গ্রামের রাজ্জাক ঘটক। জালালের এই বিয়ে পর্যাক্রমে বাকি বউয়েরা নীরবে মেনেও নেয়। তিন বউয়ের মধ্যে সারাক্ষণ দ্বদ্ব লেগে থাকলেও দিন শেষে তাদের মধ্যে দেখা যায় নীরব বন্ধন। জালালের এই বহু বিবাহ ভালো ভাবে নেয় না তার বন্ধু এই গ্রামে সহজ সরল ডুবুড়ি নয়ন। নয়নের সাথে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে জালালের সাথে দ্বদ্ব লেগেই থাকতো। তারপরেও ভালোই চলছিলো চাল চুলোহীন নয়নের জীবন।

হঠাৎ শেফালি নামে এক মেয়েকে বিয়ে করে গ্রামে আসে নয়ন। বিয়ের প্রথম দিনেই গ্রামে এসে মানুষের কান কথা শুনে স্বামীকে সন্দেহ করতে থাকে শেফালি। বিউটি নামে এক মেয়েকে টাকার বিনিময়ে মিথ্যে প্রেমিকা সাজিয়ে শেফালির কাছে হাজির করে। তারপর থেকে নয়নের সংসারে অশান্তি লেগেই থাকে। সেটা এমন পর্যায়ে যায় যে নয়ন একদিন রাতে ঘর ছাড়তে বাধ্য হয়। সেই রাতে অনেক খোঁজা খুজির পরেও নয়নকে পাওয়া যায় না। এই নিয়ে দেখা দেয় নানান জটিলতা। অবশেষে সকালে অজ্ঞান অবস্থায় শশান ঘাটে এক তালগাছের নিচে।

কেউ বলে পিশাসে ধরেছে। কেউ বলে খাবারে বিষ দিয়ে অজ্ঞান করা হয়েছে। এই অবস্থায় নয়নের ঢাকা থেকে আসা নয়নের বন্ধু সানাউল্লা হাসপাতালে নিতে চাইলে গ্রামে অনেক আগে আসা আগন্তুক স্যাটালাইট বাবা নামে এক আধ্যাতিকের কাছে নেওয়া হয়। তার কাছে নয়নের জ্ঞান ফিরলেও আচরণে দেখা দেয় ব্যাপক পরিবর্তন। যে নয়ন ছোট বড় কারো সাথে মাথা তুলে কথা বলতে না। সে এখন কথায় কথায় সব্ইাকে চরথাপ্পর মারতে থাকে। এমনি নানান ঘটনা মধ্য দিয়ে এগিয়ে যায় চাঁদের হাটের মূল গল্প।

এই ধারাবাহিকে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন- সালাহউদ্দিন লাভলু,রুনা খান,নাদিয়া আহমেদ,নাবিলা ইসলাম,ডাঃ ইজাজ,সাজু খাদেম,নাজিরা মৌ,রাসেদ জামান, নুরে আলম নয়ন, অপু,মকুল সিরাজ,মুন,শাওন,আপনসহ অনেকেই।

ধারাবাহিকটি আজ বুধবার রাত ১০টা থেকে প্রতি বুধবার, বৃহস্পতি ও শুক্রবার নাগরিক টিভিতে প্রচারিত হবে। ধারাবাহিকটি  প্রযোজনা করেছেন প্রচেষ্টার কন্যধর মোজাফফর দীপু।

সিডনিতে মিঠুর নুতন মিউজিক ভিডিও ‘দূরে’

আজ ২৯ নভেম্বর (রবিবার) দুপুর ১টায় সিডনির ব্যাঙ্কস টাউনস্থ লেমনগ্রাস থাই রেস্টুরেন্টে সিডনি প্রবাসী কণ্ঠ শিল্পী মিঠু স্বপ্ন’র নুতন একক “দূরে” গানটির মিউজিক ভিডিও আনুষ্ঠানিকভাবে উম্মোচন করা হয়। সিডনি প্রবাসী কণ্ঠ শিল্পী সহ সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ কেক কেটে এই মিউজিক ভিডিওটি আনুষ্ঠানিকভাবে উম্মোচন করেন। মিঠু স্বপ্ন’র লেখা ও সুরে ‘দূরে’ গানটির ভিডিও নির্মাণ করেছেন ফাহাদ আসমার।

তন্দ্রার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠান শুরুর পর বড় স্ক্রিনে “দূরে” গানটির মিউজিক ভিডিও প্রদর্শন করা হয়। তারপর মিঠু স্বপ্ন সহ সিডনি প্রবাসী প্রখ্যাত কণ্ঠ শিল্পীরা গান পরিবেশন করে অতিথিদের সুরের মূর্ছনায় মাতিয়ে রাখেন।  

দেশের শীর্ষ অডিও প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ধ্রুব মিউজিক স্টেশন এই একক গানটি প্রকাশ করেছে। মিঠু স্বপ্ন তার স্বাগত বক্তৃতায় উপস্থিত সবাইকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানিয়ে আবার নিয়মিত গান করার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন।

উল্লেখ্য নব্বই দশকের শেষদিকে ফাল্গুন মিউজিকের ব্যানারে মিঠু স্বপ্ন’র একক এ্যালবাম বাজারে আসে। সে সময় আধুনিক গানে তার দুটি গান টপ চার্টে স্থান পায়।

ভিকারুননিসা এলামনাই অস্ট্রেলিয়ার বার্ষিক সাধারন সভা অনুষ্ঠিত

স্থানীয় সময় ১৪ই নভেম্বর (শনিবার) ভিকারুননিসা এলামনাই অস্ট্রেলিয়া ( ভি এ অস)’র ৩য় বার্ষিক সাধারন সভা সিডনীর ক্যাসুলার একটি ফাংশন সেন্টারে উৎসব মুখর পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে কার্যকরী পরিষদের সদস্যবৃন্দ ছাড়াও সাধারন সদস্যারা উপস্থিত ছিলেন।

এলামনাই এসোসিয়েশনের বর্তমান সভাপতি ডঃ মাহবুবা খানম মুক্তার স্বাগত বক্তব্যের পর সাধারন সম্পাদক ডঃ সুরঞ্জনা জেনিফার রহমান বার্ষিক কার্যবিবরণী এবং কোষাধ্যক্ষ তাসরিনা নাহিদ তন্বী আর্থিক প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন। 

অনুষ্ঠানে অস্ট্রেলিয়াতে বসবাসরত ভিকারুন্নেসা স্কুল এবং কলেজের প্রাক্তন  শিক্ষার্থীদের অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সদস্যপদে যোগদানের জন্য আমন্ত্রণ জানানো হয়। নতুন সদস্য হতে আগ্রহীদের  অনলাইনে বিস্তারিত জানতে www.vaaus.org ওয়েবসাইটে যোগাযোগ করতে অনুরধ জানানো হয়েছে।

অনুষ্ঠানে বক্তারা জানান, সামগ্রিক কোভিড পরিস্থিতি বিবেচনা করে আগামী বছর নারী দিবসকে সামনে রেখে একটি ফান্ড রেইজিং ইভেন্ট আয়োজন করা হবে৷ পাশাপাশি ২০২১ সালে সকল ভিকারুননিসা এলামনাই কে সাথে নিয়ে একটি “পূনর্মিলনী” আয়োজনের উদ্যোগ নেওয়া হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করা হয়৷ ফান্ড রেইজিং ইভেন্ট ও পূনর্মিলনী সংক্রান্ত সকল তথ্য এসোসিয়েশনের ওয়েবসাইট ও ফেসবুক পেইজের মাধ্যমে যথা সময়ে সবাইকে জানানো হবে বলে তারা জানান।

উপস্থিত সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষনা করা হয়। সংগঠনের পক্ষ থেকে পাবলিকেশন্স সেক্রেটারি (সাকিনা আক্তার) এই তথ্য জানান।

সিডনিতে ক্যানটারবুরি- ব্যাঙ্কসটাউন কাউন্সিল বাংলাদেশী সংগঠনকে কোভিড সম্মাননা দিয়েছে

স্থানীয় সময় আজ ২৪ নভেম্বর (মঙ্গলবার) ক্যানটারবুরি- ব্যাঙ্কসটাউন সিটি মেয়র খাল আসফর বাংলাদেশী সংগঠন ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসমুহকে কোভিড সম্মাননায় ভূষিত করেন। কোভিডের কারনে স্থানীয় ল্যাকাম্বা লাইব্রেরিতে আয়োজিত বিশাল ভার্চুয়াল স্ক্রিনে এই সম্মাননা অনুষ্ঠিত হয়।  

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে বিশেষতঃ চাকরিচ্যুত অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী বাংলাদেশি শরণার্থী ও অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ বিদেশি শিক্ষার্থীদের জরুরি সহায়তা প্রদানে বাংলাদেশি সংগঠনগুলোর সক্রিয় সহায়তার স্বীকৃতি স্বরূপ ক্যানটারবুরি-ব্যাঙ্কসটাউন সিটি মেয়র এই সম্মাননা সার্টিফিকেট প্রদান করেন।

অস্ট্রেলিয়ার প্রবাসী বাংলাদেশি লেখক ও সাংবাদিকদের সংগঠন সিডনি প্রেস এন্ড মিডিয়া কাউন্সিল সহ মোট ১২ টি প্রবাসী বাংলাদেশী সংগঠন ও ৬ টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান মানবিক সহযোগিতায় সক্রিয় ভূমিকা পালন করায় কোভিড-১৯ সম্মাননা পুরস্কারে ভূষিত হয়।

মেয়র খাল আসফর কোভিড কালীন সময়ে অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থদের জরুরি সহায়তা প্রদানের পাশাপাশি তাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য প্রবাসী বাংলাদেশী সংগঠনগুলিকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

সামাজিক প্রতিষ্ঠানগুলি হচ্ছে ব্রান্ডিং বাংলাদেশ ইনক, চ্যারিটি ফর লাইভ অস্ট্রেলিয়া, সাইলেন্ট হ্যান্ড সাপোর্ট ফর ম্যানকাইন্ড, আপিল ফর হিউমানিটি, গ্রসারি এন্ড ফুড ডোর টু ডোর, ওয়ার এগেনেসট কোভিড, ম্যান ফর ম্যানকাইন্ড-লাইভ ফর লিভস, মাল্টিকালচারাল সোসাইটি অফ ক্যাম্বেলটাউন, লেটস শেয়ার টুবি ফেয়ার, শেয়ার উইথ লাভ, উই আর ফর হিউমিনিটি। ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গুলি হচ্ছে অসট্রাল বিল্ড, টিএম এলায়েন্স মোটর গ্রুপ, বিঙ্গ ফাইনান্স, এ এন্ড ও হোমস, নার্গিস কেবাব এন্ড চিকেন রেস্টুরেন্ট, চকলেট ডি মনডও, বারুদ।

সিডনি প্রেস এন্ড মিডিয়া কাউন্সিলের পক্ষ থেকে সম্মাননা সার্টিফিকেট গ্রহন করেন সংগঠনটির সাধারন সম্পাদক মোহাম্মদ আব্দুল মতিন ও সিনিয়র সহ সভাপতি মোঃ আবদুল্লাহ ইউসুফ শামিম।