সিডনিতে জন্মভূমি টেলিভিশনের বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত

৩০ মে (রবিবার) সিডনির ওয়ারাগাম্বাডেম এর পিকনিক পার্কে আয়োজন করা হয়েছিলো অস্ট্রেলিয়া থেকে সম্প্রচারিত প্রথম ও একমাত্র ২৪ ঘণ্টার বাংলা টেলিভিশন চ্যানেল জন্মভূমি টেলিভিশন এর বার্ষিক বনভোজন ২০২১। সকাল ৯ টা থেকে বনভোজন শুরু হয়ে শেষ হয় বিকেল ৪ টায়। শীতের হালকা আমেজ ও চমৎকার আবহাওয়ায় সুন্দর পিকনিক পার্কে এই আয়োজনটি ছিল উপভোগযোগ্য।

বনভোজনের অন্যান্য আয়োজনের মধ্যে ছিল মহিলাদের পিলো পাসিং ও পুরুষদের বল পাসিং। আনন্দঘন পরিবেশে ও আনন্দ উচ্ছাসের মধ্যে উপস্থিত অথিতিবৃন্দ্ এতে অংশগ্রহণ করেন। এই আয়োজনটি পরিচালনা করেন নাইম আবদুল্লাহ, কাজী সামসুল আলম রুবেল ও আবিদা আসওয়াদ।

মহিলাদের পিলো পাসিং খেলায় প্রথম দ্বিতীয় ও তৃতীয় হয়েছেন যথাক্রমে, রাহেলা আরেফিন, সৈয়দ জাফরিন আরা পিংকি ও সঞ্চিতা মতিন। সান্ত্বনা পুরস্কার পেয়েছেন আবিদা আসওয়াদ। পুরুষদের বল পাসিং খেলায় প্রথম দ্বিতীয় ও তৃতীয় হয়েছেন যথাক্রমে ফারুক আহমেদ, এইচ এম রিজভী ও ডঃ কাইউম পারভেজ। এই খেলার পুরো আয়োজনটি স্পনসর করেন, টাচ প্রিন্টিং, বাংলা হেয়ার ও কামরুল হুদা। পরে তারা বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন।

বঙ্গজ ক্রিয়েটিভ মিউজিক প্রোডাকশনের শিল্পীরা সুরের মূর্ছনায় মাতিয়ে রাখেন উপস্থিত অতিথিদের। সঙ্গীত পরিবেশন করেন সাহানা, রকি, আবদুল্লাহ মামুন, রায়হান ও সহিনি খান।জন্মভূমি টেলিভিশনের পক্ষ থেকে এ সময় শিল্পীদের ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা জানান টেলিভিশনের সিইও রাহেলা আরেফিন।

দুপুরের খাবারে মেনুতে ছিল কাচ্চি বিরিয়ানি, বোরহানি, সালাদ, ড্রিঙ্কস ও মিষ্টান্ন। বিকেলের হাল্কা নাস্তায় ছিল চা, কফি, ফিরনি, জিলাপি ও কেক। অতিথি আপ্যায়নের আংশিক স্পন্সর ছিলেন জাহাঙ্গীর আলম। মুখরোচক এই কাচ্চি বিরিয়ানি রান্না করেন কাজী সামসুল আলম রুবেল। তাকে সহযোগিতা করেন রাহেলা আরেফিন ,কবিতা পারভেজ, শিরিন আক্তার মুন্নি, ডঃ ফয়জুল আজিম চঞ্চল ও আসওয়াদুল হক বাবু। ফটোগ্রাফি ও ব্যবস্থাপনা সহযোগিতায় ছিলেন নাইম আবদুল্লাহ ও আবিদা আসওয়াদ।

জন্মভুমি টেলিভিশনের পক্ষে বনভোজনে অংশ নেন, আবু রেজা আরেফিন, রাহেলা আরেফিন, সৈয়দ আকরাম উল্লাহ, নাইম আবদুল্লাহ, সাখাওয়াত হোসেন বাবু, কাজী সামসুল আলম রুবেল, শিরীন আক্তার মুন্নি, আবিদা আসওয়াদ, ডঃ ফয়জুল আজিম চঞ্চল, বেলায়েত রবীন, আসওয়াদুল হক বাবু ও কানিতা আহমেদ।

অতিথিদের মধ্যে স্ব-পরিবারে অংশ নেন ডঃ কাইউম পারভেজ, জাহাঙ্গীর আলম, মোহাম্মদ আব্দুল মতিন, শফিকুর রহমান লস্কর, ফারুক আহমেদ, আকাশ দে, সাদ্দাম খান, কাউসার খান, রানা শরীফ ও কামরুল হাই। আরো উপস্থিত ছিলেন কামরুল হুদা, শাহিন শাহনেওয়াজ প্রমুখ। এবারের বনভোজনের আয়োজনটি স্বল্পপরিসরে জন্মভূমি টেলিভিশন পরিবার ও কিছু আমন্ত্রিত অতিথিদের মধ্যে সীমাবদ্ধ ছিল।

জন্মভূমি টেলিভিশনের চেয়ারম্যান আবু রেজা আরেফিন বলেন, অল্প সময়ের প্রস্তুতি এবং হঠাৎ সিদ্ধান্তের কারণে এবারের বনভোজনে ইচ্ছা থাকা সত্ত্বেও অনেক শুভাকাঙ্ক্ষীদের নিমন্ত্রন জানাতে পারি নাই বলে আমি আন্তরিকভাবে দুঃখিত। তিনি আরও বলেন, আগামী বছর আমরা আরো বৃহৎ কলেবরে, বাসে চড়ে ব্যানার লাগিয়ে, মাইক বাজিয়ে অনেকে মাইল দূরে গিয়ে একেবারে প্রকৃতির সাথে মিশে বাংলাদেশের আমেজে বনভোজনের স্থানে রান্না (চড়ুইভাতি) করবো। যাদের এবারে বলা হয়নি আমাদের সেই সব শুভানুধ্যায়ীদের আগামীতে নিমন্ত্রন জানানোর ইচ্ছা রয়েছে। সবশেষে তিনি উপস্থিত অতিথি, স্পনসরদের ও জন্মভূমি টিমকে  ধন্যবাদ জানিয়ে বনভোজন ২০২১ এর সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s