সিডনিতে ফাগুন হাওয়া’র বৈশাখী আড্ডা

অস্ট্রেলিয়ার সিডনিতে প্রবাসী বাংলাদেশীদের সাংস্কৃতিক সংগঠন ফাগুন হাওয়ার আয়োজনে হয়ে গেল বৈশাখী আড্ডা। পহেলা বৈশাখে সিডনির বেক্সলি ম্যানর ফাংশন সেন্টারে এই আয়োজন করা হয়। ষোল আনা বাঙালি ঐতিহ্যকে মাথায় রেখে এবারের অনুষ্ঠান সাজানো হয়। করোনার বিধিনিষেধ মেনে এতে প্রায় সাড়ে চারশ’ প্রবাসী বাংলাদেশী অংশগ্রহণ করেন।

এবারের আয়োজন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে ফাগুন হাওয়ার পক্ষ থেকে ১২ সদস্য বিশিষ্ট একটি বৈশাখে টিম গঠন করা হয়। প্রতিবছরের মতো এবারও ক্যান্টারবুরি ব্যাঙ্কসটাউনের এক্স কাউন্সিলর শাহে জামান টিটু সহ কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ এই অনুষ্ঠানটি সুন্দরভাবে সম্পন্ন করতে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেন। অনুষ্ঠানে বক্তব্য দিতে গিয়ে শাহে জামান টিটু বলেন, ফাগুন হাওয়ার যেকোনো গঠনমূলক কাজের সাথে তিনি সবসময় থাকবেন।

অনুষ্ঠানের শুরুতেই অস্ট্রেলিয়া এবং বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত বাজানো হয়। এরপর একে একে ছিল নাচ, গান, কবিতা আবৃত্তি। নাচে মৌসুমি সাহা ও তার দল, আনুভা আদ্রিতা রায়। কবিতা আবৃত্তি করেন শহিদুল আলম বাদল, আকিদুল ইসলাম, ফয়জুন্নেছা পলি, মোশতাক আহমেদ ও আরিফুর রহমান। রবীন্দ্র সঙ্গীত পরিবেশন করেন পলশ্রী রায়। দেহতাত্ত্বিক গানে মাতিয়ে রেখেছিলেন নামিদ ফরহান ও আয়শা কলি। সবশেষে সিডনির নামকরা ব্যান্ডদল কৃষ্টি বৈশাখী গান সহ জনপ্রিয় বাংলা গান পরিবেশন করে।

আপ্যায়ন পর্বে চমক রেখেছিল আয়োজক কর্তৃপক্ষ। প্রথমবারের মতো প্রায় চারশ’ জনের জন্য গরম গরম ইলিশ মাছ ভেনুতেই ভেজে পরিবেশন করা হয়। রকডেলের ফুসকা হাউজের খাবারও ছিল। এছাড়াও হরেক রকম পিঠা, মিষ্টি, দই-চিড়া, খই, নাড়ু, মুড়ি মুড়কি সহ বাংলাদেশি ঐতিহ্যবাহী খাবারের সমাহার ছিল অনুষ্ঠানে। এতে বাচ্চাদের জন্য বিশেষভাবে তৈরি পোলাও, রোস্ট, ডিম, চিপস ও সুসজ্জিত ফ্রুটস প্লাটার পরিবেশন করা হয়। ছিল বাংলার অন্যতম অনুষঙ্গ মজাদার পান। বৈশাখী আড্ডার পরিপূর্ণ আমেজ ফুটিয়ে তুলতে বৈশাখী মেলার আয়োজনও ছিল। সেখানে বাচ্চাদের খেলনা ও বড়দের বিভিন্ন বাঙালি পোশাক বিক্রি করা হয়।

 অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে ফাগুন হাওয়া’র সভাপতি তিশা তাসমিম তানিয়া বলেন, এ বছর প্রথমবারের মতো বাংলা নববর্ষ উদযাপনে বাংলাদেশ ছাড়াও ইন্ডিয়ান, কলকাতার বাঙালি ও নেপালিরা অংশগ্রহণ করেন। তিনি আরো বলেন বাঙালি ঐতিহ্য ও কৃষ্টি কালচারের সাথে সব দেশ সব দেশীয় মানুষকে পরিচিত করাই এই আয়োজনের মূল উদ্দেশ্য। এ সময় ফাগুন হাওয়ার সাধারণ সম্পাদক সাজেদা আক্তার সানজিদা আগামী বছর আবারও বৈশাখী আড্ডা আয়োজনের আশাবাদ ব্যক্ত করে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।   

একুশে একাডেমী অস্ট্রেলিয়ার স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন

সিডনিতে বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন করেছে একুশেএকাডেমি অস্ট্রেলিয়া। ১১ এপ্রিল দুপুর ১২ টায় সিডনির বেলমোর কমিউনিটি সেন্টারে এই আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার আবদুল মতিন। সঞ্চালনায় ছিলেন সাধারণ সম্পাদক রওনক হাসান।

অনুষ্ঠানের শুরুতেই বাংলাদেশ এবং অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সংগীত পরিবেশন করা হয়। এরপর ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের স্মরণে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন ও শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করা হয়। অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন নজরুল ইসলাম, ডঃ সুলতান মাহমুদ, ডঃ কাইউম পারভেজ, নেহাল নেয়ামুল বারী, ডঃ শাখাওয়াত নয়ন প্রমুখ। এ সময় বক্তারা বলেন গত ৫০ বছরে বাংলাদেশ শিক্ষা, যোগাযোগ, অর্থনীতি, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও স্বাস্থ্য খাতে অভূতপূর্ব উন্নতি করেছে। সাক্ষরতার হার বাড়লেও সামাজিক মূল্যবোধ ও নীতি নৈতিকতার চর্চা কমেছে বলে উল্লেখ করেন বক্তারা।

পরে মুনা মোস্তফার উপস্থাপনায় কবিতা আবৃত্তি, শিশু -কিশোরীদের নৃত্য এবং দেশের গান নিয়ে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে সঙ্গীত পরিবেশন করেন অমিয়া মতিন, অভিজিৎ বড়ুয়া, পিয়াসা বড়ুয়া, সুমিতা দে প্রমুখ। তবলায় সংগীত পরিবেশন করেন জন্মেজয় রায়।