সিডনিতে অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিল’র ১৩ তম বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত

নাইম আবদুল্লাহঃ স্থানীয় সময় ২০ মার্চ (শনিবার) অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিল (এবিবিসি) এর ১৩ তম বার্ষিক সাধারণ সভা সিডনির ওয়ালি ক্রিকে অনুষ্ঠিত হয়।  প্রতিষ্ঠানটির ৮০ ভাগেরও বেশি আর্থিক সদস্য এই সভায় অংশ নিয়ে আর্থিক ও বার্ষিক প্রতিবেদন উপস্থাপন সহ আগামী ২ বছরের মেয়াদে একটি নতুন কার্যনির্বাহী কমিটি নির্বাচিত করেন।

বার্ষিক সাধারণ সভার প্রথমে বিদায়ী সভাপতি আসিফ কাওনাইন তার বক্তৃতায় গত ২০১৮ সালের এপ্রিলে নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে তাঁর কমিটির সাফল্য তুলে ধরেন। তিনি জানান, ক্যানবেরায় হাই কমিশনের মাধ্যমে বাংলাদেশ সরকারের সার্বিক সহযোগিতায় সিডনিতে গত ২০১৯ সালের নভেম্বরে তিনদিন ব্যাপী আন্তঃ মহাদেশীয় অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ ট্রেড কনফারেন্স (এবিটিসি) এর আয়োজন করা হয়।

এছাড়াও গত মেয়াদে এবিবিসির কার্যক্রমগুলি অস্ট্রেলিয়া এবং বাংলাদেশের মধ্যে বর্তমান বাণিজ্য এবং বিনিয়োগের সম্পর্কের ভিত্তি তৈরির পাশাপাশি সরকারী ও বেসরকারী পর্যায়ে সংলাপ এবং আলোচনার মাধ্যমে দুটি অর্থনীতির মধ্যে সম্ভাব্য সুযোগ, ঝুঁকি এবং চ্যালেঞ্জ গুলি মূল্যায়নে অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিল গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করেছে বলেও বিদায়ী সভাপতি আসিফ কাওনাইন মত প্রকাশ করেন।

তিনি এবিবিসিকে আজকের সার্বিক ব্যবসায়িক সংস্থায় পরিণত করার নিরলস পরিশ্রমের জন্য সংগঠনের সকল কর্মকর্তা ও নির্বাহী সদস্যদের ধন্যবাদ জানান।

এই সময় উপস্থিত সকল সদস্য এবং অতিথিরা অস্ট্রেলিয়া এবং বাংলাদেশের মধ্যে বিনিয়োগ ও দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যের সুযোগ বৃদ্ধিতে শীর্ষস্থানীয় সংস্থা হিসেবে অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিলের ভূয়সী প্রশংসা করেন।

বিদায়ী ট্রেজারার আবদুল হক এবিবিসি-র আর্থিক রিপোর্ট পেশ করে জানান, সংস্থাটি উল্লেখযোগ্য বাজেটের ইভেন্ট ও কার্যক্রম পরিচালনায় পূর্বের চেয়ে গত মেয়াদে আর্থিকভাবে শক্ত অবস্থান তৈরিতে সক্ষম হয়েছে।

সভায় বিশেষ অতিথি বাংলাদেশের কনসাল জেনারেল খন্দকার মাসুদুল আলম তার বক্তব্যে বাংলাদেশ ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বৃদ্ধিতে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালনে এবিবিসির অবদানের প্রশংসা করেন।

তারপর সভাপতি পূর্বের কার্যনির্বাহী কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণার পর নির্বাচন কমিশনার হিসাবে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সাবেক কনসাল জেনারেল অ্যান্থনি খৌরি মনিরুল ইসলাম ও আবু রেজা আরেফিন এর সহযোগিতায় নতুন কমিটির জন্য নির্বাচন পরিচালনা করেন। 

নতুন কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্যরা হলেন, আসিফ কাওনাইন সভাপতি, আবদুল হক ও মোঃ আবু শাহাদাত সরকার সহ সভাপতি, মোঃ আরিফুল হক সরকার সাধারন সম্পাদক, এআইচএম মোতাসিম বিল্লাহ ও জাহাঙ্গীর আলম সহ সাধারণ সম্পাদক, মোহাম্মদ হোসেন কোষাধ্যক্ষ, সাজেদা আক্তার, রহমতউল্লাহ, লিটন বাউল, অ্যালেক্সান্ডার জন এক্সেনস, রাশেদ খান, মোঃ শাহিনুল ইসলাম, তোহা মোহাম্মদ ও আলাসদাইর দউগাল সদস্য।

অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে অস্ট্রেলিয়ান পার্লামেন্টের সহকারী স্পীকার মার্ক কুরে এম পি সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন। দুপুরের খাবার পরিবেশনের পর সভার সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।