অজি ইমি এ্যান্ড এডুকেশন কনসালটেন্সি’র ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ডিরেক্টর হিসেবে যোগদান করেছেন সাংবাদিক মোহাম্মাদ আব্দুল মতিন

নাইম আবদুল্লাহ: সিডনি প্রবাসি সাংবাদিক মোহাম্মাদ আব্দুল মতিন ‘অজি ইমি এ্যান্ড এডুকেশন কনসালটেন্সি’র ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ডিরেক্টর হিসেবে যোগদান করেছেন।

অস্ট্রেলিয়ার স্বনামধন্য এডুকেশনাল কনসালটেন্সি প্রতিষ্ঠান ‘অজি ইমি এ্যান্ড এডুকেশন কনসালটেন্সি’র প্রধান নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মাদ আলতাফ হোসেন তাঁকে এই দায়িত্ব প্রদান করেন। এই প্রতিষ্ঠানটি দীর্ঘদিন যাবত স্টুডেন্ড ভিসা, স্কীল মাইগ্রেশন, ওয়ার্কিং এন্ড ট্রেনিং ভিসা, ফ্যামিলি ভিসা, ভিজিট ভিসা, রিজিওনাল স্পন্সরশীপ ভিসাসহ শিক্ষা সংক্রান্ত বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছেন। মোহাম্মাদ আব্দুল মতিন সিডনি অফিস থেকে তাঁর দায়িত্ব পালন করবেন এবং বাংলাদেশের অফিস পরিচালনাসহ অন্যান্য দেশের সাথে আন্তর্জাতিক সমন্বয় করবেন।

এক প্রশ্নের জবাবে আবদুল মতিন বলেন, অস্ট্রেলিয়া মহাদেশ হলো অপার সম্ভাবনার দেশ। এই দেশে লোক সংখ্যা মাত্র আড়াই কোটি। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশ থেকে মাইগ্রেশন নিয়ে এবং উচ্চশিক্ষার জন্য প্রতিবছর কয়েক লক্ষ আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থী অস্ট্রেলিয়ায় আসে। বাংলাদেশ থেকেও প্রতিবছর কয়েক হাজার ছাত্র-ছাত্রী পড়তে আসে। তবে যোগ্যতা থাকা সত্বেও উপযুক্ত তথ্য এবং গাইডলাইনের অভাবে আমাদের দেশের শিক্ষার্থীরা অস্ট্রেলিয়ায় আসতে পারেনা। অনেক সময় তারা বিভিন্নভাবে প্রতারিত হয়। এক্ষেত্রে শুধু অর্থই নয়, ছাত্র-ছাত্রীরা নিজেদের জীবনের মূল্যবান সময়ও হারিয়ে ফেলে। এজন্য দরকার নির্ভরযোগ্য তথ্য ও গাইডলাইন। আমি চাচ্ছি, বাংলাদেশের শিক্ষার্থীরা অস্ট্রেলিয়ায় এসে উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করে বাংলাদেশের উন্নয়নে বিশেষ ভূমিকা রাখুক। এছাড়াও আমাদের দেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রে পারদর্শীরা মাইগ্রেশন নিয়ে এবং ওয়ার্কিং ভিসায় অস্ট্রেলিয়ায় আসুক। আমি তাদেরকে সর্বাত্মক সহযোগিতার চেস্টা করবো।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, অজি ইমি এ্যান্ড এডুকেশন কনসালটেন্সি শুধু অস্ট্রেলিয়াই নয়, মালয়েশিয়া, কানাডা, জাপানসহ বিভিন্ন দেশে ভর্তি ও স্টুডেন্ট ভিসার কার্যক্রম পরিচালনা করে থাকে।

তিনি আরো বলেন, অস্ট্রেলিয়া অ্যাওয়ার্ড স্কলারশিপ ২০২১ চালু হয়েছে এবং এর অধীনে অনেকগুলো ইউনিভার্সিটি রয়েছে। এই স্কলারশিপের আওতায় সম্পূর্ণ বিনাবেতনে পড়াশুনার সুযোগ, ফ্রি আবাসন সুবিধা, লিভিং এক্সপেন্স এর জন্য মাসিক ভাতা, হেলথ ইনস্যুরেন্স, ফ্রি এয়ার টিকেট এর সুবিধা, টেক্সটবুকসহ নানা প্রকার শিক্ষা সামগ্রী ক্রয় করার জন্য অতিরিক্ত এলাউন্স প্রদান করা হবে। বাংলাদেশী শিক্ষার্থীরা এই সুযোগ গ্রহন করতে পারেন।

মোহাম্মাদ আব্দুল মতিন বর্তমানে বিদেশবাংলা টোয়েন্টিফোর ডট কমের সম্পাদক ও টাইমস্ টোয়েন্টিফোর টিভি’র অস্ট্রেলিয়া ব্যুরো প্রধানের দায়িত্ব পালন করে আসছেন। এছাড়াও তিনি সিডনি প্রেস ও মিডিয়া কাউন্সিলের প্রতিষ্ঠাতা সাধারন সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বে রয়েছেন। পাশাপাশি তিনি বাংলাদেশ সাংবাদিক অধিকার ফোরামের (বিজেআরএফ) শিক্ষা ও গবেষণা সম্পাদক।

বিস্তারিত তথ্যের জন্য যোগাযোগ করা যাবেঃ matin@aussieconsultancy.com.au

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s