অস্ট্রেলিয়ায় চাকুরী হারানো কর্মীদের ‘জবকিপার’ সহায়তা

অস্ট্রেলিয়ায় করোনাভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্থদের সহায়তায় প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন গত ৩০ মার্চ (সোমবার) ১৩০ বিলিয়ন অস্ট্রেলিয়ান ডলারের ঘোষনা দেন। স্মরনকালের সবচেয়ে বেশি অংকের এই ‘জবকিপার’ সহায়তা দিয়ে অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকদের এই মহাদুর্যোগের দিনে চাকরি সামলাবে সরকার।

এই সহায়তায় প্রায় ৬০ লক্ষ চাকুরী হারানো কর্মী আগামী ৬ মাস প্রতি দুই সপ্তাহের ব্যবধানে ১৫০০ ডলার আর্থিক সহায়তা পাবেন। খণ্ডকালীন ও ক্যাজুয়াল কর্মী এবং নিউজিল্যান্ডের নাগরিক যারা কমপক্ষে গত এক বছর কাজ করছেন, তারাও এই  সুবিধা পাবেন। তবে কর্মীর স্বামী বা স্ত্রী বা পার্টনারের বার্ষিক আয় ৭৯ হাজার ডলারের ওপরে হলে এ সুবিধা পাবেন না।

এর আগে করোনাভাইরাসের মহাদুর্যোগ মোকাবেলায় আরও দুইটি সরকারী ঘোষনায় ৮ হাজার ৩৬০ কোটি ডলারের সহায়তা বাজেটের আওতায় অস্ট্রেলিয়ার বেকার নাগরিকরা প্রতি দুই সপ্তাহে সরকার থেকে সাড়ে ৫০০ ডলারের পরিবর্তে ১৫০০ ডলার পাবেন। এ ছাড়াও  বয়স্ক, শারীরিক প্রতিবন্ধী, নিম্ন আয়ের অভিভাবক যারা  শিশু অথবা স্কুল পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের লালন-পালন করেন, তাঁদের নিয়মিত সরকারী ভাতার সঙ্গে অতিরিক্ত এককালীন ৭৫০ ডলার দেওয়ার ঘোষনা দেয়া হয়েছে।

এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৪ হাজার ৩ শত ৫৯ জন। মৃত্যু হয়েছে ১৮ জনের। অস্ট্রেলিয়ায় এই পর্যন্ত করোনাভাইরাস শনাক্ত করার জন্য ২ লক্ষ ৩০ হাজারেরও বেশী মানুষকে পরীক্ষা করা হয়েছে। তবে অস্ট্রেলিয়ায় কোনো প্রবাসী বাংলাদেশির করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার খবর এখন পর্যন্ত পাওয়া যায়নি।

করোনা- করেনা- করুনা

আম গাছে জাম
কলা গাছে আম,
করোনা ভাইরাসের কথা কি আর কইতাম।
জ্বরের মধ্যে পরছেন,
এইবার ধরা খাইছেন‌।
হয়নি করোনা, হয়েছে জ্বর,
বলবে সবাই- ওর উপর হয়েছে কোরোনার ভর।
দিবেন একটা কাশি
হতেও পারে ফাঁসি।
যদি হয় সর্দি
হাসপাতালে, ভুলেও হবেনা ভর্তি।
করোনা হয়েছে ! মানুষ দিবে উঁকি,
আসবেনা এগিয়ে, নিবেনা ঝুঁকি।
সামাজিক দূরত্ব একটু মেনে চলুন ,
এই কথাটা সবাইকে গুরুত্ব দিয়ে বলুন।
বসে থাকুন ঘরে, পরিবারের সাথে,
নামাজ পড়ুন, রোজা রাখুন, দোআ করুন দুহাতে।
হাঁচি-কাঁশি দিতেই পারেন শিষ্টাচার মেনে
ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন, খুশি হবো জেনে।

এনামুল হক মজুমদার শাকিল


দেশে ক্ষতি গ্রস্থ মানুষের পাশে সিডনি ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান ‘স্বদেশ’ পরিবার

সিডনি ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান ‘স্বদেশ’ পরিবারের সদস্য অনলাইন নিউজ পোর্টাল ‘স্বদেশ বার্তা’ ও বিনোদন প্রতিষ্ঠান ‘স্বদেশ এন্টারটেইনমেন্ট’ করোনা ভাইরাসে ক্ষতি গ্রস্থ বাংলাদেশের সাধারণ মানুষের জন্য বিনামূল্যে ডাল, আটা, আলু, ভোজ্য তেল, লবন, সাবান ও শুকনো খাবারসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদিন বিতরন করেছে।

স্বদেশ পরিবারের কর্ণধার ফয়সাল আজাদ জানান, বিশ্বব্যাপী মহামারি করোনা ভাইরাসে আজ মানুষের জীবন মহাসংকটে ফেলে দিয়েছে। বিশেষ করে খেটে খাওয়া সাধারণ মানুষ এক ভয়াবহ কষ্টের মধ্য দিয়ে দিন যাপন করছে। একজন রিক্সাওয়ালা, একজন দৈনিক শ্রমিকের জীবনে করোনার চেয়ে এখন ভয়াবহ অবস্থা হচ্ছে খাদ্যাভাব। তাদের কাছে এখন করোনা যন্ত্রণার চেয়ে বড় কষ্ট হচ্ছে খেয়ে বেঁচে থাকা। এই সমস্যা সঙ্কুলানে আমরা অসহায় মানুষদের পাশে সামর্থ অনুযায়ী দাঁড়ানোর চেষ্টা করছি। সেই সঙ্গে প্রবাসী সহ সকল সামর্থবানদের প্রতি বিনীত আহবান করছি আপনারা এই মহাসংকটে মানুষের পাশে দাঁড়ান, নিশ্চয়ই আল্লাহ্ শীঘ্রই আমাদের এই সংকট থেকে উদ্ধার করবেন। আমিন।

আন্তর্জাতিক ছাত্র ও শরণার্থীদের জন্য মাল্টিকালচারাল সোসাইটি অব ক্যাম্বেলটাউনের সাহায্যের আবেদন

কোভিড-১৯ বা করোনাভাইরাস কারনে ক্ষতিগ্রস্ত আন্তর্জাতিক ছাত্র ও শরণার্থীদের সাহায্যের জন্য একটি ফান্ড গঠন করেছে মাল্টিকালচারাল সোসাইটি অব ক্যাম্বেলটাউনে ইনক। এই ফান্ড গঠনের জন্য মাল্টিকালচারাল সোসাইটি অব ক্যাম্বেলটাউনে ইনকের সদস্যরা অর্থ প্রদান করবেন। সমাজের স্বহৃদয়বান ব্যাক্তিরাও সংস্থাটির ব্যাংক হিসাব Multicultural Society of Campbelltown Inc., Bank Name: NAB. BSB- 082356. A/C-584529257 এই ফান্ডে অর্থ প্রদান করতে পারবেন। ফান্ডের সমুদ্বয় টাকা জনস্বার্থে স্বচ্ছতার ভিত্তিতে খরচ করা হবে এবং খরচের খাতসমূহের হালনাগাদ বিস্তারিত তথ্য ফেসবুকে প্রকাশ করা হবে। 

সংস্হাটির পক্ষে সভাপতি এনাম হক, সিনিয়র সহ সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, সাধারন সম্পাদক মোঃ শফিকুল আলম এক যৌথ বিবৃতি বলেন,বর্তমান সময়ের এই ক্রান্তিলগ্নে আমরা নিজেদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার পাশাপাশি আমাদের চারপাশের নিম্ন আয়ের মানুষের প্রতি বিশেষ করে আন্তর্জাতিক ছাত্র ও শরণার্থীদের প্রতি সদয় হই। নিজেদের সাধ্যানুযায়ী তাদের পাশে দাঁড়াই। তাদের প্রতি একটু খেয়াল রাখি।

ইতিমধ্যে অনেক ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান এ মানবিক কাজগুলো শুরু করেছে। তাদের সাধুবাদ জানাই। তবে প্রয়োজনের তুলনায় এখনও তা সীমিত ও অপ্রতুল। গুটিকয়েক ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান এ বিপুলসংখ্যক  মানুষের জন্য খুব বেশি কিছু করতে পারবে না। তাই আমাদের সকলের উচিৎ এ ভয়াবহ দুর্যোগে রাষ্টীয় সুবিধাবঞ্চিতদের পাশে দাঁড়ানো। আন্তর্জাতিক ছাত্র ও শরণার্থীদের আপদ কালীন জরুরী আর্থিক সহায়তা দেওয়ার লক্ষ্যে  মাল্টিকালচারাল সোসাইটি অব ক্যাম্বেলটাউনে ইনক একটি ফান্ড গঠনের উদ্যোগ নিয়েছে। দলমত নির্বিশেষে সকলেকে তার সামর্থ্য অনুযায়ী আর্থিক সহযোগিতার আহবান জানাচ্ছি। প্রেস বিজ্ঞপ্তি

সিডনিতে সিক্সারর্স ক্রিকেট ক্লাব বিনামূল্যে খাবারের ব্যবস্থা করেছে

সিডনিতে প্রবাসী বাংলাদশী ক্রিয়া সংগঠন সিক্সারর্স ক্রিকেট ক্লাব (Sixers Cricket Club) “স্টে হোম স্টে সেফ” শ্লোগান নিয়ে করোনা ভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্থদের সহায়তায় সম্পূর্ণ বিনামূল্যে রান্না করা প্যাকেট খাবারের ব্যবস্থা করেছে। তাদের এই মহতি উদ্যোগে মাংস ও অন্যান্য রন্ধন সামগ্রী দিয়ে সাহায্য করেছে ল্যাকাম্বাস্থ বাংলাদেশী মালিকানাধীন ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান ধানসিঁড়ি রেস্টুরেন্ট ও রহমানীয়া হালাল বুচারী।

ল্যাকাম্বাস্থ রেলওয়ে প্যারেডের ধানসিঁড়ি রেস্টুরেন্টের সামনের টেবিলে রাখা এই খাবারের প্যাকেট করোনা ভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্থদের সংগ্রহ করার জন্য বিনীত অনুরোধ জানানো হয়েছে।

সিডনি প্রবাসীরা দেশের চিকিৎসা খাতে পিপি জ্যাকেট পাঠাবে

করোনা ভাইরাস সঙ্কটে সিডনি প্রবাসী বাংলাদেশীরা দেশের বিভিন্ন সরকারি হাসপাতালে কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ জ্যাকেট সরবরাহ করবে। এই মহতি উদ্যোগের সাথে সিডনি প্রবাসীদের মধ্যে আছেন হাসান সাইমুন ফারুক রবিন, রুহুল আমিন, ফরহাদ আসমার, সুলতানা নদী, নাদিম পরদেশী, তারেক ইসলাম, আরিফ রহমান, হক নাদের প্রমুখ।

অন্যতম উদ্যোগতা হাসান ফারুক সাইমুন রবিন জানান, সারা পৃথিবী আজ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। আমরা সংবাদ মাধ্যমে জানতে পেরেছি যে, বাংলাদেশের হাসপাতাল গুলোতে কর্তব্যরত ডাক্তার ও নার্সদের জন্য পর্যাপ্ত পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ জ্যাকেট না থাকায় তারা রোগীদের চিকিৎসা দিতে ভয় পাচ্ছেন। দেশের এই ক্রান্তিলগ্নে আমরা প্রবাসীরা সামান্য উদ্যোগ গ্রহন করেছি। আমরা আশা করবো আমাদের কষ্টার্জিত অর্থ দিয়ে পাঠানো পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ জ্যাকেট যেন শুধুমাত্র চিকিৎসা খাতেই ব্যবহৃত হয়। পাশাপাশি তিনি পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের প্রবাসীদের এই সেবায় এগিয়ে আসার জন্য বিনীত অনুরোধ জানান।

বাংলাদেশী কমিউনিটি ইন ক্যাম্বেলটাউন করোনা ক্ষতিগ্রস্থদের পাশে থাকবে

সিডনির ক্যাম্বেলটাউনস্থ বাংলাদেশী কমিউনিটি করোনা ভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্থ প্রবাসী বাংলাদেশীদের সহায়তায় এগিয়ে এসেছে। এক ফেজবুক পেজে তারা জানান, ক্যাম্বেলটাউনের এলাকায় করোনা ভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্থদের যে কোন ধরনের সহযোগিতায় ও প্রয়োজনে আমরা পাশে থাকছি। বাংলাদেশী কমিউনিটি ইন ক্যাম্বেলটাউন অত্র এলাকার সবাইকে মনোবল বজায় রাখতে, লজ্জিত কিংবা হতাশা গ্রস্থ না হয়ে তাদের https://m.facebook.com/COVID-19-Support-Group-Campbelltown-105124057806641/ ইনবক্স করতে বিনীত অনুরোধ জানিয়েছে।  পাশাপাশি যারা সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিতে চান তারাও যোগাযোগ করতে পারেন।

করোনা এন্টার্কটিকা ছাড়া কোন সীমারেখা মানেনি।। রেহাই পাননি বিশ্বের অনেক ক্ষমতাধর ব্যক্তি

করোনা ভাইরাস কোন সীমারেখা মানছে না। এন্টার্কটিকা মহাদেশ ব্যাতীত বিশ্বের ১৯৯টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়েছ পড়েছে এই ভাইরাস। এই পর্যন্ত বিশ্বে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছ প্রায় ৬ লক্ষ এবং মৃত্যুবরন  করেছে  ২৭ হাজারেরও অধিক মানুষ।

করোনা ভাইরাসের প্রকোপ মোকাবিলা করতে ‘লকডাউন’ করায় কাজ হারিয়েছে লক্ষ লক্ষ মানুষ। শ্রম বিভাগের তথ্য অনুযায়ী, এক সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রে ৩৩ লক্ষ মানুষ বেকারভাতার জন্য আবেদন করেছেন, যা রেকর্ড। বিবিসি অনলাইনের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। অস্ট্রেলিয়ায় ইতিমধ্যেই ১ মিলিয়ন মানুষ বেকার হয়েছে। 

বিশ্ব অর্থনীতির ওপর করোনাভাইরাসের যে প্রভাব পড়েছে তা কাটিয়ে উঠতে অনেক বছর সময় লেগে যাবে। পৃথিবীর ২০টি ধনী দেশের জোট জি-টোয়েন্টি, করোনাভাইরাস মহামারি মোকাবেলায় বিশ্বব্যাপী পরিকল্পনা নিয়ে টেলিযোগাযোগের মাধ্যমে আলোচনা শুরু করেছে। বৈঠকের আগে জাতিসংঘ হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছে, বিশ্বের বিভিন্ন জায়গায় লক্ষ লক্ষ উদ্বাস্তু এবং শরণার্থীরা যে চরম হুমকির মুখে আছে, সেটার ওপর যেন মনোযোগ দেয়া হয়। 

সৌদি আরব বৃহস্পতিবার জি-২০ দেশগুলির সঙ্গে প্রথম ভার্চুয়াল শীর্ষ সম্মেলনের আয়োজন করে। করোন ভাইরাস সংকটে সম্মিলিতভাবে কিভাবে বিশ্বের অর্থনৈতিক প্রতিক্রিয়া মোকাবেলা করা যায় তা নিয়ে আলোচনা হয়।

এই করোনা ভাইরসের করাল গ্রাস থেকে রেহাই পাননি বিশ্বের অনেক ক্ষমতাধর ব্যক্তি। করোনাভাইরাস আক্রান্ত বিশ্ব নেতা, রাজনীতিবিদ ও উচ্চ পদস্থদের একটি তালিকা নিম্নে দেয়া হলো: 

অস্ট্রেলিয়া:  অস্ট্রেলিয়ার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পিটার ডাটন, লিবারেল ন্যাশনাল পার্টি কুইন্সল্যান্ডের সিনেটর সুসান ম্যাকডোনালস্ ও লিবারেল পার্টি অব অস্ট্রেলিয়ার সিনেটর (নিউ সাউথ ওয়েলস্) এন্ড্রু ব্রাগগ।

ব্রাজিল: ব্রাজিলের প্রেসিডন্ট জায়েল বলসোনারোর প্রেস সচিব ফাবিও ওয়াজাংগার্টেন, ওয়াশিংটনে ব্রাজিলের শার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্স আগস্টো হেলেনো এবং সিনেটর দেবি আলকলাম্বের।

কানাডা: কানাডার কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর স্ত্রী সোফি গ্রেগৈর ট্রুডো। 

ইউরোপীয় ইউনিয়ন: ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রধান আলাপালোচনকারী মাইকেল বারনিয়ার।

ফ্রান্স:  ফ্রান্সের সংস্কৃতিমন্ত্রী ফ্রাঙ্ক রিস্তার, বাস্তুসংস্থানমন্ত্রী ব্রুনে পয়েরসন, একজন সংসদ সদস্য, পার্লামেন্টের এক কর্মকর্তা আক্রান্ত হয়েছেন।

জার্মানি:  জার্মানির খ্রিস্টান ডেমোক্রেটিক ইউনিয়ন পার্টির প্রধান নেতা ফ্রেডরিচ মেজ। 

ইরান:  ইরানের ২৪ জন সংসদ সদস্য আক্রান্ত। দুই সংসদ সদস্য ফাতেমা রাহবার ও মোহাম্মদ আলী রামেজানি মারা গেছেন। ইরানের উপ-স্বাস্থ্যমন্ত্রী ইরাজ হারিসি এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট মাসুমেহ এবতেকারও আক্রান্ত হয়েছেন।

ইসরাইল: ইসরাইলের জার্মানিতে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত জেরিনি ইশাচারোফ।

ইতালী: ইতালীয়ান ডেমোক্রেট পার্টির প্রধান নিকোলা জিংগারেট্টি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এবং ইতালীর ক্যানে মিউনিসিপলিটির মেয়র জর্জিও ভেলোটি ও রোবারতো স্তেলা মৃত্যুবরণ করেন।

মোনাকো: মোনাকোর প্রিন্স আলবার্ট করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। 

রওয়ে:  নরওয়ের সোশ্যাল এন্ড লেবার মিনিস্টার টর্বজন রোয়ি ইসাকসেন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। 

স্পেন:  করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেদ্রো সানচেজ ও স্ত্রী মারিয়া বোগোনিয়া গোমেজ। এছাড়াও কোয়ালিটি মিনিটস্টার ইরিনি মন্ট্রিনিও, সেক্রেটারী জেনারেল অব ফার কাউট বক্স জাবির ওরতেগা স্মিথ, স্পেনিশ রিজিওন অব ক্যাটালোনিয়ার নেতা কুইনস টোরা এবং ক্যাটালন সরকারের ডেপুটি প্রধান পেরে আরাগোনেস।

বৃটেন:  বৃটিশ প্রধানমন্ত্রী ‘বরিস জনসন’ও রেহাই পাননি করোনাভাইরাসের করাল গ্রাস থেকে। তিনি করোনায় আক্রান্ত হয়ে আইসোলেশনে আছেন। বৃটিশ রাজপরিবারের অন্যতম সদস্য প্রিন্স চার্লস ও স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী নাদিন ডোরিস করোনাভাইরাস আক্রান্ত হন।

জাতিসংঘ: জাতিসংঘের ওয়ার্ল্ড ফুড বিভাগের প্রধান পরিচালক ডেভিড বিয়েসলিও করোনাভাইরাস আক্রান্ত হন।

আমেরিকা: আমেরিকার একাধিক রাজনীতিবিদ ও উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা করোনাভাইরাস আক্রান্ত হয়েছেন; এদের মধ্যে রিপাবলিকান সিনেটর রান্ড পল, ফ্লোরিডা রিপাবলিকান প্রতিনিধি মারিও ডিয়াজ বালার্ট, নিউ ইয়র্ক স্টেটের এ্যাসেম্বিলির দুই সদস্য হেলেন ওয়েইনেস্টেইন এবং চার্লস ব্যারন, যুক্তরাষ্ট্রের মিয়ামি রাজ্যের মেয়র ফ্রান্সিস সুয়ারেজ, অস্কারজয়ী হলিউড তারকা টম হ্যাঙ্কস ও তার স্ত্রী রিটা উইলসন।

ফুটবল তারকা:  ইতালির ফুটবল তারকা ডানিয়েল রুগানি, ফরাসি এনবিএ বাস্কেটবল খেলোয়াড় রুডি গোবার্ট ও ডনোভন মিচেল, আর্সেনাল ফুটবল ক্লাবের কোচ মিকেল আর্তেতা, ব্রিটিশ ফুটবল তারকা ক্যালাম হাডসন ওডোই এবং চিলির সাহিত্যিক লুই সেপুলভেদা করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

মোহাম্মাদ আব্দুল মতিন, সাংবাদিক  সম্পাদক: বিদেশবাংলা টোয়েন্টিফোর ডটকম সাধারণ সম্পাদক: সিডনি প্রেস এ্যান্ড মিডিয়া কাউন্সিল, অস্ট্রেলিয়া

স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি শ্রদ্ধা ও সম্মান জানিয়েছে অষ্ট্রেলিয়া বিএনপি (একাংশ)

অষ্ট্রেলিয়া বিএনপি (একাংশ) ‘র আহব্বায়ক অধ্যাপক ডক্টর হুমায়ের চৌধূরী রানা এবং সদস্য সচিব মোহাম্মদ হায়দার আলী স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে স্বাধীনতার মহান ঘোষক শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের অবদানের কথা শ্রদ্ধাভরে স্মরন করে যে সকল অকুতভয় মুক্তিযোদ্ধা ভাই বোনেরা তাদের রক্তের বিনিময়ে আমাদেরকে স্বাধীন দেশ উপহার দিয়েছিলেন তাদের প্রতি শ্রদ্ধা আর সম্মান জ্ঞাপন করেন। এছাড়াও তারা স্বাধীনতা দিবসের প্রাক্কালে গনতন্ত্রের মাতা বাংলাদেশের জনপ্রিয় নেত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া কারামুক্তি লাভ করায় মহান আল্লাহ পাকের শুকরিয়া আদায় করেন। দেশের গনতন্ত্রকামী মানুষের মনে কিছুটা হলেও স্বস্থির নিঃশ্বাস জাগবে বলে তারা উল্লেখ করেন।

বিবৃতিতে তারা অষ্ট্রেলিয়া তথা দেশে বিদেশে অবস্থানরত সকল বাংলাদেশী ভাই বোনদেরকে প্রিয় মাতৃভূমির ৪৯ তম স্বাধীনতা দিবসের শুভেচ্ছা এবং অভিনন্দন জানিয়েছেন। বিবৃতিতে নেত্রীবৃন্দ বর্তমান সময়ের কোভিড ১৯ মহামারীর প্রাদুর্ভাবে সমগ্র পৃথিবী জুড়ে গন মানুষের জীবন বিপন্নের হুমকিতে উদ্বেগ প্রকাশ করেন এবং এই মরন ঘাতি রোগ থেকে আমাদের মুক্তির জন্য পরম করুনাময়ের নিকট সাহায্য প্রার্থনা করেন। এব্যাপারে সবাইকে নিয়ম নীত অবলম্বন করে নিজেদের নিরাপত্তা রক্ষা করে চলার প্রয়োজন বলে তারা উল্লেখ্ করেন।

বিবৃতিতে আরোও সাক্ষর করেন কমিটির সিনিয়র নেত্রীবৃন্দসহ অন্যান্য সদস্যবৃন্দ। তাদের মধ্যে ছিলেন আরিফুল হক, সোহেল ইকবাল, জাকির আলম লেলিন, আশরাফুল আলম রনি, মিতা কাদরি, ফয়জুর রহমান চৌধূরী, ফরিদ আহমদ, মোহাম্মদ আলমগীর, মোহাম্মদ ইউসুফ আলী, সাইফুল ইসলাম, রকিবুল ইসলাম অপু, ইয়াসির আরাফাত অপু, সাদ সামাদ, তাফতুন নিতু, মিজান, আবু বকর, শামসুল আলম ,ঈসমাইল হোসেন ,মীর হুসেন, খুরশেদ প্রমুখ। প্রেস বিজ্ঞপ্তি

অকল্যান্ডে করোনায় ক্ষতিগ্রস্থদের সহায়তা করবে তানজির ও শায়লা

নিউজিল্যান্ডের অকল্যান্ডে করোনা ভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্থদের সহায়তায় এগিয়ে এসেছে প্রবাসী বাংলাদেশী তানজির ও তার স্ত্রী শায়লা। এক ফেজবুক বার্তায় তারা জানান,  অকল্যান্ডে করোনা ভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্থদের নাস্তা, দুপুরের ও রাতের খাবার সহ ও তাদের বাচ্চাদের প্রয়োজনে আমরা রান্না করা খাবার, সিরিয়াল, দুধ, রুটি, চিনি, চিজ, জ্যাম, সহ যে কোন ধরনের খাবারের ব্যবস্থা করবো। এই পরিবারটি অন্যদের মনোবল বজায় রাখতে, লজ্জিত কিংবা হতাশা গ্রস্থ না হয়ে তাদের https://www.facebook.com/tanzeer.zobaer ইনবক্স করতে বিনীত অনুরোধ জানিয়েছে।