কি ভাবে এত কম সময়ে শেয়ার বাজারে এত ‘লস’ বা এত ‘লাভ’ হয়?

আমিও শেয়ার মার্কেট বা শেয়ার বাজারের এত ‘কম সময়ে বেশী লাভ বা বেশী লস’ এর বিষয়টা তেমন বুঝি না। দয়া করে কেউ কি বুঝিয়ে দেবেন, কি ভাবে এত ‘কম সময়ে শেয়ার বাজার থেকে শেয়ারে ক্ষুদ্র (১০ লাখ থেকে ১০০ লাখ টাকা) বিনিয়োগকারীরা সপ্তাহে সপ্তাহে হাজার হাজার টাকা লাভ প্রত্যাশা করে?? কি ভাবেই বা এত হাজার হাজার কোটি টাকা শেয়ার মার্কেট থেকে উধাও হয়ে যায়???

তবে, আমার ক্ষুদ্র জ্ঞ্যান আর অভিজ্ঞতা বলে, শেয়ার বাজার হচ্ছে এক ধরনের ‘কারসাজি’র খেলা! আর, শেয়ার মার্কেট সব দেশেই ‘জুয়া’ খেলার মত একটা ‘খেলা’।  এতুটুকু বুঝি এবং দেখেছি যে, শেয়ার বাজারের ‘খেলার মারপ্যাঁচ’ ও জটিল কুটিল বিষয় গুলি ভাল ভাবে  না জেনে, না বুঝে ‘খেলতে নামলে’ বিপদ বা লোকসান অনিবার্য। বাংলাদেশে কেন পৃথিবীর অনেক দেশে তাই হয় এবং হচ্ছে।

একটি বাস্তব উদাহরণ দেই, আমরা যেমন মাছ ধরার আগে পুকুরে মাছের খাবার বা “টোপ ” বা “আধার ” ফেলি, মাছ গুলোকে এক বিশেষ জায়গায় আনতে। তেমনি ভাবে, শেয়ারবাজার এর “কারিগর”রা এই ধরনের “টোপ ” ফেলে ২ বা ৩ সপ্তাহ বা আরো কিছু বেশী সময় ১০০০% থেকে ৫০০০% লাভ (কৃত্তিম ভাবে শেয়ার এর দাম বাড়িয়ে) দিয়ে লোভে ফেলে তাদের “শিকার” ধরে।

শেয়ার বাজার যদি অন্যান্য ব্যাবসার মত বা অঙ্কের মত ২ +২ = ৪ হয়  তাহলে কেউ শেয়ার বাজারেও “আসবে” না আর শেয়ার বাজারও “জমবে” না। এই চরম সত্যটা আমি ১৯৯৮ সালে (ICB ইউনিট বিক্রি করে) প্রায় ১০ লক্ষ টাকা শেয়ার মার্কেটে এ বিনিয়োগ করে পুরো টাকাটা খুইয়ে এই নির্মম সত্যটি বুঝেছি।

কারসাজির মাধ্যমে বাজার থেকে পাকা খেলোয়ড়রা কোটি কোটি টাকা লোপাট করে এবং করতেই থাকবে। শেয়ার মার্কেট এ বিনিয়োগ করে হাজার লক্ষ কোটি টাকা (লাভ) এত কম সময়ে কোত্থেকে আসবে?

এক জনের টাকা আরেক জনের পকেটে যায়। কাজটি সম্পূর্ণ বা আংশিক ‘অনৈতিক’। কিন্তু বেআইনী কী? আমি এখনও জানি না বুঝিও না। আমরা সব্বাই জানি যে, মুসলমানদের জন্য ব্যাঙ্কের সুদ খাওয়া ও সুদ দেওয়া এবং এই সুদ এর সাথে জড়িত থাকাও চরম অনৈতিক এবং ইসলাম ধর্মীয় দৃষ্টিতে বিশাল গুনহার কাজ।

কিন্তু তারপরেও কি কোটি কোটি মুসলমানরা এই সুদের (“রিবা”র) সাথে জড়িত না?  মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশগুলোতে সুদী ব্যাংক নেই?? আছে এবং বেশ ভাল ভাবেই আছে। কারন ব্যপারটি ধর্মীয় ভাবে অনৈতিক ও হারাম হলেও  কোন দেশেই তা বেআইনী নয়। মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশগুলোতে না।

এমনকি পৃথিবীর মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশগুলোতে এই আধুনিক বা সুদী ব্যাঙ্কিং পদ্ধতি শুধু চলমানই না। ঐ সব মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশের বেশ গুরুত্তপূর্ণ ও বড় অর্থনৈতিক প্রতিষ্ঠান। ক্ষুদ্র বা/ও বড় বিনিয়োগ কারীদের নিকট আমার বিনীত জিজ্ঞাসা, এত কম কস্ট করে, কয়েক লক্ষ (বা কয়েক কোটি) টাকা দিয়ে, নামী বা বেনামী কোম্পানির কিছু “শেয়ার” কিনে, ঘরে বা অফিসে বসে যদি প্রতিদিন বা প্রতি মাসে হাজার হাজার, লক্ষ লক্ষ  টাকা লাভ বা পাওয়া যেত তাহলে, দেশের ছোট বড় শিল্পপতিরা আর ধনীরাও আমাদের চেয়ে আরও অনেক বেশী টাকা  (শত বা হাজার) কোটি কোটি টাকার “শেয়ার” কিনে ঘরে বা অফিসে বসে  প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ টাকা লাভ নিত বা পেত। কস্ট করে শিল্প-কল কারখানা দিতনা এবং তা কষ্ট করে পরিচালনাও করত না।

তাই যারা এমন কয়েক লক্ষ বা কোটি টাকা দিয়ে কিছু “শেয়ার” কিনে, ঘরে বা অফিসে বসে যদি প্রতিদিন হাজার হাজার বা মাসে লক্ষ টাকা লাভ পাওয়ার আশায় বসে বিনিয়োগ করে তারা আসলেই খুবই লোভী বা বেশী লোভী।

অতি লোভে, তাঁত যেমন নস্ট হয়ে যায় তেমনি অতি লোভ করাও পাপ আর সেই পাপে মৃত্যু ডেকে আনে। এবার আমার নিজের বোকামীর বা অতি লোভের কথা বলছি। আমি সেই ১৯৮৭ সাল থেকে প্রথমে ICB, পরে ICB AMCL (২০০৪ সাল থেকে), Bangladesh Fund এর  Unit Fund (২০১০ সাল থেকে) এ invest করে আজ অবধি বেশ লাভ (ডিভিডেন্ড) পাচ্ছি।

কিন্তু, মাঝ খানে ১৯৯৬ সালের শেয়ার বাজারের ঝটিকা লাভ দেখে এবং ১৯৯৭ সালে শেয়ার বাজারের পতন দেখে ১৯৯৮ সালে ICB এর (ডিভিডেন্ড) লাভ করা টাকা থেকে  প্রায় ১০ লক্ষ টাকা, শেয়ার মার্কেটে বিনিয়োগ করেছিলাম এক শেয়ার বাজার ‘বোদ্ধা’র মাধ্যমে।

কিন্তু, কম সময়ে বেশী লাভ করার মানসে শেয়ার বাজার বা শেয়ার মার্কেট এর পুরো জ্ঞান তো দুরের কথা নুন্যতম বা বেসিক জিনিস না বুঝে বিনিয়োগ করে পুরো টাকাটাই খুইয়েছি। সবশেষে  আমাদের অনেকের মত কম সময়ে “বেশী লাভ” পাওয়ার লোভে যারা শেয়ার বাজার বা শেয়ার মার্কেট সম্বন্ধে সঠিক ভাবে ও ভাল ভাবে না বুঝে জীবনের অনেক বা বড় অংশের বা সব সঞ্চয় বিনিয়োগ করে বিশাল লসের শিকার হয়েছেন তাঁদের জন্য দুঃখ প্রকাশ করছি।

লেখকঃ শফিকুর রহমান অনু

অকল্যান্ড, নিউজিল্যান্ড প্রবাসী

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s